Skip to content Skip to footer

মোঃ সজীব

মোঃ সজীব

৬ সদস্যের পরিবারে আমার বাবা-মা, ছোট বোন, এবং আমার স্ত্রী ও কন্যা সন্তান। পরিবারের বড় সন্তান আমি। বোনের বিয়ে হয়ে গিয়েছে। গাজীপুরের কাপাসীয়া গ্রামে বাবা রাজমিস্ত্রির কাজ করতেন। অর্থের টানা পুরণে বাবা-মা জীবিকার তাগিদে ঢাকা চলে আসেন আমাদের গ্রামের বাড়িতে রেখে আসেন। ঢাকায় বাবা প্লাষ্টিক নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের ব্যবসা শুরু করলেন এবং মা এনজিওতে চাকরি করেন। গ্রামের কলেজ থেকে ২০০৬ সালে ব্যবসা শিক্ষায় এইচ এস সি পাশ করি। বিদেশে যাবার চেষ্টা করি অনেক দিন কিন্তু অর্থের অভাবে আর যাওয়া হয়নি।
জীবিকার তাগিদে ২০১৩ সালে ঢাকায় আসার পর চাকরিতে যুক্ত হই। প্রতিদিন ৯-৫ টা পর্যন্ত অফিস করে কেটে গেছে কয়েক বছর। ছোট বেলা থেকে ব্যবসার প্রতি আগ্রহ ছিল। প্রতিনিয়ত ভাবি কিভাবে ব্যবসা করা যায়।
কাগজের তৈরি গিফট বানিয়ে বন্ধুকে জন্মদিনের উপহার দেই, বন্ধু খুবই পছন্দ করে। সেই থেকে চিন্তা করি কাগজের তৈরি গিফট পণ্য নিয়ে কিছু করা যেতে পারে। অনলাইন এ ঘাটাঘাটি করে আরো কিছু আইডিয়া নেই, কিভাবে নতুন নতুন ডিজাইনের পণ্য তৈরি করতে হয়। ২০১৬ সালে ফেইসবুক পেইজ ওপেন করি। অনলাইনে ভাল সাড়া পেয়েছি।
২০২০ সালে বি’ইয়ার ওয়ার্কশপে অংশগ্রহন করি। ঐ দিনের আলোচনা শুনে মনস্থির করেছি, চাকরি ছেড়ে উদ্দ্যোক্তা হবো। তারপর বি’ইয়ার প্রশিক্ষণ এবং ওয়েবিনারে অংশগ্রহন করে। ব্যবসা পরিকল্পনা তৈরি করে অস্থায়ী ২ জন কর্মী নিয়ে এস বি গিফট শপ এর কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছি।
বর্তমানে আমি বাসায় থেকেই কার্যক্রম পরিচালনা করি। করোনা কালীন সময়ে অর্ডার অনেক কমে যাওয়ার কারণে ব্যবসায়ের যথেষ্ট পরিমান ক্ষতি হয়। ক্রেতারা পণ্য অর্ডার করে কিন্তু গ্রহন না করে ফেরত পাঠায়। প্রেমেন্ট বন্ধ হয়ে যায়। তারপরও এখন অল্প পরিসরে বাসা থেকেই কার্যক্রম পরিচালনা করার চেষ্টা করছি। বর্তমানে কাগজের গিফট ছাড়াও কাঠের তৈরি বিভিন্ন গিফট, কাস্টমাইজড গিফট, সারপ্রাইজ গিফট, ডেকোরেশন আইটেম বিক্রি করে থাকি।
চাকরির পাশাপাশি ব্যবসা করাটা কঠিন হয়ে যাচ্ছিল। ব্যবসা করতে গিয়ে যে সমস্যার সম্মুখীন হয়েছে চাকরি করে বাসায় এসে একা পণ্য তৈরি করা, দক্ষ কর্মীর পাচ্ছিলাম না, ফেইসবুকে সময় দেয়া, অর্ডার কালেক্ট করা, সময়মত পণ্য ডেলেভারী দেয়া সম্ভব হচ্ছিল না। এছাড়া ক্রেতারা পণ্য ফেরত পাঠাতো। খুবই ধীর গতিতে চলছে ব্যবসা।
অনলাইনে ব্যবসাই দক্ষতা একেবারেই ছিলনা, বি’ইয়ার Ecommerce & Digital marketing skills প্রশিক্ষণ এর মাধ্যমে অনলাইনে ব্যবসা পরিচালনার পাশাপাশি নিজের দক্ষতার উন্নয়ন করতে পেরেছি। মার্কেটিং, হিসাবরক্ষন, ডিসেন্টওয়ার্ক প্রশিক্ষণটি ছিল আমার জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ।
মেন্টর আমার ও ব্যবসা জীবনে গুরুত্বপূণ ভূমিকা রাখে। প্রতি মাসে আমরা দুইবার মিটিং করে আমাদের ব্যবসায় সমসাময়িক বিষয়গুলো নিয়ে মেন্টর এর সাথে আলোচনা করি। মেন্টর ফেইসবুকে কনটেন্টসহ ছবি ও ভিডিও কখন এবং কোন সময়ে আপলোড করে বোষ্টিং করলে সাড়া পাওয়া যাবে এই পরামর্শ দিয়ে থাকেন।
গিফট কিনতে গেলেই ক্রেতাদের এস বি গিফট শপ এর নাম প্রথমে মনে পরবে। সারা দেশে সুপরিচিতি লাভ করবে। মুনাফা অর্জনের পাশাপাশি মানুষের কর্মসংস্থান সৃষ্টি করবো এটাই আমার লক্ষ্য এবং উদ্দেশ্য।

Leave a comment